করোনার প্রকোপ কমতে শুরু করেছে স্পেনে

বিশ্ব Tamalika Basu ২১-মে-২০২০
Cabaran kini, ganjaran menanti © Abdul Razak Abdul Latif | Dreamstime.com

করোনাভাইরাসের প্রকোপ কমতে শুরু করেছে স্পেনে। দেশটিতে স্বস্তিজনকভাবে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগী ও মৃতের সংখ্যা কমছে।

১৪ মার্চ থেকে শুরু হওয়া জরুরি রাষ্ট্রীয় সতর্কতার মেয়াদ ২৪ মে শেষ হওয়ার কথা থাকলেও সরকারের পক্ষ থেকে আরও দুই সপ্তাহ বৃদ্ধি করার জন্য প্রস্তাব আনা হয়েছে সংসদে।

২৭ জুন পর্যন্ত পঞ্চম ও শেষ জরুরি রাষ্ট্রীয় সতর্কতার অনুমোদন দিয়েছে দেশটির সংসদ। স্পেনে ৪ মে থেকে জরুরি অবস্থার অনেকগুলো বিষয় শিথিল করা হয়। তখন থেকে কেবল গণপরিবহনে মাস্ক পরিধান বাধ্যতামূলক করা হয়েছিল।

স্পেনে ২১ মে থেকে সর্বসাধারণের চলাচলের জায়গা বা পাবলিক স্পেস, যেখানে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা সম্ভব নয়, সেখানে মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে।

বুধবার সরকারি রাষ্ট্রীয় গেজেট (বিওই)-এ প্রকাশিত নির্দেশ অনুযায়ী রাস্তা, প্রকাশ্য কিংবা বদ্ধ জায়গা যেখানে দুই মিটার দূরত্ব বজায় রাখা সম্ভব নয়, সেখানে অবশ্যই মাস্ক পরিধান করতে হবে। এ নিয়মটি ছয় বছরের বেশি বয়সের প্রত্যেকের জন্য প্রযোজ্য। জরুরি রাষ্ট্রীয় সতর্কতা চলাকালীন পর্যন্ত এ নিয়ম বলবৎ থাকবে বলে রাষ্ট্রীয় গেজেটে উল্লেখ করা হয়।

গত ১৭ মে কেন্দ্রীয় সরকার ও আঞ্চলিক সরকারের নেতৃবৃন্দের আলোচনা শেষে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা সম্ভব নয় যেসব জায়গায়, সেখানে মাস্ক পরিধান বাধ্যতামূলক করার ব্যাপারে ঐক্যবদ্ধ হোন। পরবর্তীতে ২০ মে বুধবার গেজেট আকারে সেটা প্রকাশিত হয়।

মাস্ক পরিধানের নতুন নিয়ম অনুযায়ী ছয় বছরের বেশি বয়সের সবাইকে মাস্ক পরিধান করতে হবে। তবে এ নিয়মে ব্যতিক্রমও থাকছে তাদের জন্য, যারা শ্বাসকষ্ট জনিত সমস্যায় ভুগছেন এবং স্বাস্থ্যজনিত কারণে বা মাস্ক পরতে সমস্যা হয়। স্বাস্থ্যমন্ত্রী সালভাদর ইয়্যা স্প্যানিশ রেডিও স্টেশন কাদেনা সের-এ বলেছেন, শারীরিক ব্যায়াম বা জগিং এর ক্ষেত্রে মাস্ক পরিধানের নিয়মটি প্রযোজ্য হবে না।

গেজেটে কোনোধরণের মাস্ক পরিধান করতে হবে তা সরাসারি উল্লেখ না থাকলেও স্বাস্থ্যকর বা সার্জিক্যাল মাস্ক পরিধানের পরামর্শ দেয়া হয়েছে। সরকার ইতোমধ্যে সার্জিক্যাল মাস্ক (একপাশ নীল ও অন্যপাশ সাদা) এর মূল্য নির্ধারণ করেছে ০.৯৬ ইউরো (৯৬ সেন্টস)।