খালেদা জিয়া ভারতের সন্তান, বাংলাদেশের নন- দাবি হাসিনার

বিশ্ব Tamalika Basu ০৬-ফেব্রু.-২০২০

জিয়া, এরশাদ ও খালেদা বাংলাদেশের সন্তান নন। তাঁরা এই মাটির সন্তান নন বলে মন্তব্য করে সাড়া ফেলে দিলেন ইতালি সফররত বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এখনও পর্যন্ত যারা বাংলাদেশে ক্ষমতায় এসেছেন, তাদের মধ্যে কেবল তিনি এবং তাঁর বাবা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানই একমাত্র এই মাটির সন্তান। দাবি করেছেন হাসিনা।

ইতালিতে আওয়ামি লিগের শাখা আয়োজিত এক নাগরিক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে বুধবার এমনই দাবি করেন হাসিনা। রোমের পার্কো দে প্রিন্সিপি গ্র্যান্ড হোটেলে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে শেখ হাসিনা আরও বলেন, ‘জিয়াউর রহমান বিহারে, এরশাদ কোচবিহারে ও খালেদা জিয়া শিলিগুড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। আপনারা যদি খেয়াল করে দেখেন, তাহলে দেখতে পাবেন, আমি এবং বঙ্গবন্ধু ছাড়া আর কেউই বাংলাদেশের মাটির সন্তান নয়। যেহেতু আমাদের মাটির টান আছে, সেই জন্য আমাদের একটা কর্তব্যবোধও আছে।’ বাংলাদেশের মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করতেই হবে। সেই কথা চিন্তা করেই প্রতিটি পদক্ষেপ তিনি নিচ্ছেন বলে দাবি করেন হাসিনা। বিশ্বের যে কোনও জাতির সঙ্গে প্রতিযোগিতা করে এগিয়ে যাওয়ার ক্ষমতা বাংলাদেশ অর্জন করেছে বলেও দাবি বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীর। শেখ হাসিনার কথায়, ‘আমাদের আর কেউ পেছনে টানতে পারবে না। আমরা সামনে এগিয়ে যাব।’

প্রবাসী বাংলাদেশিদের কল্যাণে তাঁর সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের কথাও এদিন উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমাদের সরকার প্রবাসী কল্যাণ ব্যাংক প্রতিষ্ঠা করেছে, যেখানে বিদেশে যেতে ঘর-বাড়ি ভিটে-মাটি বিক্রি করতে না হয়।’ তিনি বলেন, ‘সরকার সারাদেশে ৫৮০০টি ডিজিটাল সেন্টার গড়ে তুলেছে, বিদেশে যাঁরা যেতে চান তাঁরা প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রকে তাঁদের নাম নিবন্ধন করতে পারেন। প্রত্যেক উপজেলার থেকে কমপক্ষে এক হাজার লোককে বিদেশে পাঠানোর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে এবং তাদের জন্য স্মার্ট কার্ড সরবরাহ করা হচ্ছে।’ বুধবার রোমে বাংলাদেশ চ্যানচারি ভবনের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।